চুয়াডাঙ্গা ০৫:২৮ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪, ১ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সর্বশেষ সংবাদঃ
চুয়াডাঙ্গায় উন্নত ব্যবস্থাপনায় মাছ চাষের উপর প্রশিক্ষণ চুয়াডাঙ্গায় আন্ত‌জেলা অজ্ঞান পার্টির সক্রিয় ৬ সদস্য  আটক; চেতনা নাশক ঔষধ উদ্ধার দামুড়হুদার ডুগডুগি বাজারে বিট পুলিশিং সভায় পুলিশ সুপার ফয়জুর রহমান-অপরাধ দমনে পুলিশ কে তথ্য দিয়ে সহায়তা করুন স্ত্রী‌কে সম্ভ্রমহা‌নি করার অপরা‌ধে ক‌বিরাজ‌কে জবাই ক‌রে হত্যা দামুড়হুদায় নবনির্বাচিত উপজেলা চেয়ারম্যান, ভাইস চেয়ারম্যান ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যানদের সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে এমপি টগর-প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সব সময় জনগণের কথা চিন্তা করে দামুড়হুদায় মাশরুম চাষ সম্প্রসারণে মাঠ দিবসে সাবেক মহাপরিচালক ড. হামিদুর রহমান -চুয়াডাঙ্গার মাটি কৃষির ঘাটি দামুড়হুদায় জাতীয় ভিটামিন-এ প্লাস ক্যাম্পেইন অবহিতকরণ ও পরিকল্পনা সভা দামুড়হুদার আটকবর মোড়ে পূর্ববিরোধের জেরে ২জনকে কুপিয়ে, মারপিটে জখম করার অভিযোগ  দামুড়হুদার দুটি রাস্তার উন্নয়নমূলক কাজের উদ্বোধন কালে এমপি টগর -আওয়ামীলীগ সরকার উন্নয়নমূখী সরকার দামুড়হুদায় বোরো ধান সংগ্রহের লটারী অনুষ্ঠিত 

পুলিশ সদস্য ভাইপোর বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ করলেন চাচা

 

দামুড়হুদা উপজেলার বিষ্ণুপুর গ্রামের মাস্টারপাড়ার একটি বাঁশ ঝাড় থেকে ৪’শ টি বাঁশ কেটে নেয়ার অভিযোগ তুলে এক পুলিশ সদস্যর বিরুদ্ধে দামুড়হুদা মডেল থানায় লিখিত অভিযোগ করা হয়েছে। (৫ মার্চ) মঙ্গলবার দুপুরে ওই পুলিশ সদস্যর চাচা বাদী হয়ে ভাই ও ভাইপোর নামে লিখিত অভিযোগ করেছে থানায়। ভুক্তভোগীর অভিযোগ পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে থানা পুলিশ।

ভুক্তভোগীর লিখিত অভিযোগ ও সরজমিন অনুসন্ধানে জানাগেছে, দামুড়হুদা থানাধীন বিষ্ণুপুর গ্রামস্থ মাষ্টার পাড়ায় বাড়ির পিছনে ৮শতক জমিতে বাঁশ রোপন করে মহিদুল ইসলাম ও তার ভাই, বোনেরা। ওই জমির শরীক তারা ১১ভাই বোন। কিন্তু তাদের ভাই মহাসিন আলীর ছেলে আহসান হাবীব প্রায় মাঝে মাঝে ওই বাঁশ ঝাড় থেকে বাঁশ কেটে নেয়। তারই ধারাবাহিকতায় মঙ্গলবার সকালে ওই বাঁশ ঝাড় থেকে ৪’শ পিচ বাঁশ কেটে নেয় ছুটিতে বাড়িতে আসা পুলিশ সদস্য (ভাইপো) আহসান হাবীব। এক পর্যায়ে অন্য শরীকরা তাকে বাঁশ কাটতে নিষেধ করায় সে পুলিশ বাহীনির সদস্য হওয়ায় বিভিন্ন রকম গালিগালাজ ও হুমকি ধামকি দিতে থাকে। তার(পুলিশ সদস্যর) ভয়ে আতঙ্কিত হয়ে পড়েছে ভুক্তভোগী ও তার শরীকরা। ভুক্তভোগীরা তারা আইনের আশ্রয় নিতে দামুড়হুদা মডেল থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন। অভিযোগ পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন অভিযোগ তদন্তকারী কর্মকর্তা। এসময় ঘটনাস্থলে পৌঁছে কাঁটা বাঁশ দেখতে পাই অভিযোগ তদন্তকারী কর্মকর্তা ও স্থানীয় সাংবাদিকেরা।

অভিযুক্ত পুলিশ সদস্য (এএসআই) আহসান হাবীব বলেছেন, আমার ও বাবার উপরে অনেক নির্যাতন করেছে আমার চাচারা।তারা আমাদের কে ভালো ভালো জমিগুলো থেকে বঞ্চিত করেছে। তিনি আরো বলেন, বাঁশ বাগানটি আমাদের সকলের। অন্য কেউ পরিবারের লোকজন বাঁশ কেটে নিলে সমস্যা হয় না। আমি আমার আসহায় বোনের জন্য কয়টা বাঁশ কেটেছি তাতেই চাচারা আমার বাবার সাথে খারাপ আচরণ করেছে।

দামুড়হুদা মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আলমগীর কবির বলেন, এ সংক্রান্ত একটা অভিযোগ হয়েছে। বিষয়টি তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

প্রসঙ্গঃ
জনপ্রিয় সংবাদ

চুয়াডাঙ্গায় উন্নত ব্যবস্থাপনায় মাছ চাষের উপর প্রশিক্ষণ

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

পুলিশ সদস্য ভাইপোর বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ করলেন চাচা

প্রকাশ : ০১:৩০:৪০ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ৬ মার্চ ২০২৪

 

দামুড়হুদা উপজেলার বিষ্ণুপুর গ্রামের মাস্টারপাড়ার একটি বাঁশ ঝাড় থেকে ৪’শ টি বাঁশ কেটে নেয়ার অভিযোগ তুলে এক পুলিশ সদস্যর বিরুদ্ধে দামুড়হুদা মডেল থানায় লিখিত অভিযোগ করা হয়েছে। (৫ মার্চ) মঙ্গলবার দুপুরে ওই পুলিশ সদস্যর চাচা বাদী হয়ে ভাই ও ভাইপোর নামে লিখিত অভিযোগ করেছে থানায়। ভুক্তভোগীর অভিযোগ পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে থানা পুলিশ।

ভুক্তভোগীর লিখিত অভিযোগ ও সরজমিন অনুসন্ধানে জানাগেছে, দামুড়হুদা থানাধীন বিষ্ণুপুর গ্রামস্থ মাষ্টার পাড়ায় বাড়ির পিছনে ৮শতক জমিতে বাঁশ রোপন করে মহিদুল ইসলাম ও তার ভাই, বোনেরা। ওই জমির শরীক তারা ১১ভাই বোন। কিন্তু তাদের ভাই মহাসিন আলীর ছেলে আহসান হাবীব প্রায় মাঝে মাঝে ওই বাঁশ ঝাড় থেকে বাঁশ কেটে নেয়। তারই ধারাবাহিকতায় মঙ্গলবার সকালে ওই বাঁশ ঝাড় থেকে ৪’শ পিচ বাঁশ কেটে নেয় ছুটিতে বাড়িতে আসা পুলিশ সদস্য (ভাইপো) আহসান হাবীব। এক পর্যায়ে অন্য শরীকরা তাকে বাঁশ কাটতে নিষেধ করায় সে পুলিশ বাহীনির সদস্য হওয়ায় বিভিন্ন রকম গালিগালাজ ও হুমকি ধামকি দিতে থাকে। তার(পুলিশ সদস্যর) ভয়ে আতঙ্কিত হয়ে পড়েছে ভুক্তভোগী ও তার শরীকরা। ভুক্তভোগীরা তারা আইনের আশ্রয় নিতে দামুড়হুদা মডেল থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন। অভিযোগ পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন অভিযোগ তদন্তকারী কর্মকর্তা। এসময় ঘটনাস্থলে পৌঁছে কাঁটা বাঁশ দেখতে পাই অভিযোগ তদন্তকারী কর্মকর্তা ও স্থানীয় সাংবাদিকেরা।

অভিযুক্ত পুলিশ সদস্য (এএসআই) আহসান হাবীব বলেছেন, আমার ও বাবার উপরে অনেক নির্যাতন করেছে আমার চাচারা।তারা আমাদের কে ভালো ভালো জমিগুলো থেকে বঞ্চিত করেছে। তিনি আরো বলেন, বাঁশ বাগানটি আমাদের সকলের। অন্য কেউ পরিবারের লোকজন বাঁশ কেটে নিলে সমস্যা হয় না। আমি আমার আসহায় বোনের জন্য কয়টা বাঁশ কেটেছি তাতেই চাচারা আমার বাবার সাথে খারাপ আচরণ করেছে।

দামুড়হুদা মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আলমগীর কবির বলেন, এ সংক্রান্ত একটা অভিযোগ হয়েছে। বিষয়টি তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।